Currently set to Index
Currently set to Follow
বই রিভিউ ও ডাউনলোড

জ্ঞানতত্ত্ব বই Pdf Download (New)

দারুন একটা বই নিয়ে আসলাম. জ্ঞানতত্ত্ব বই Pdf Download  – Gyantatwa pdf

বইটি পড়ুন অথবা ডাউনলোড করুন

যা জানতে পারবেন এই বইটি পড়ে- 
জ্ঞান দর্শন
জ্ঞান বিদ্যা কি
ভারতীয় দর্শন জ্ঞানতত্ত্ব
জ্ঞানতাত্ত্বিক দ্বৈতবাদ
জ্ঞানবিদ্যা ও অধিবিদ্যা
চার্বাক জ্ঞানতত্ত্ব
বৌদ্ধ দর্শনের জ্ঞানতত্ত্ব
লকের জ্ঞানতত্ত্ব

কোন মহল্লায় তাহার এক ভগ্নি থাকিত। (ঘটনা চক্রে) তাহার বোন মারা গেল, তাহার দাফন করিয়া যখন ঘরে আসিল তখন স্মরণ হইল যে, টাকার লিটা কবরে পড়িয়া গিয়াছে। তখন অন্য এক ব্যক্তিকে সাথে লইয়া কবরস্থানে যাইয়া কবর খুদিয়া টাকার থলি পাইল। তখন সে তাহার সাথীকে বলিল আরও একটু খনন কর, ভগ্নির অবস্থা দেখিয়া লই । আরও একটু খনন করার পর কবরে প্রজ্জলিত অগ্নিকুন্ড দেখিতে পাইল । তক্ষনাৎ কবর মাটি দ্বারা বন্ধ করিয়া ফেলিল। অতঃপর মাতার কাছে ভগ্মির আমল সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করিল। তাহার মাতা এই সম্বদ্ধে কিছু বলিতে সম্মত হইলনা, কিন্তু তাহার পিড়াপিড়িতে (বাধ্য হইয়া) বলিল যে, তোমার ভগ্নি নামাজ বিলম্ব করিয়া পড়িত এবং অজুও ঠিকমত করিত না । রাত্রে যখন সবাই শুইয়া পড়িত তখন দরজার পার্ষে কান পাতিয়া অন্যের কথা শুনিত, যাহাতে (দিনের বেলায়) মানুষের কাছে বলিয়া দিতে পারে ।-  মৃত ব্যক্তির চিৎকার  রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম রলেনঃ প্রত্যেক মৃত ব্যক্তিই চিৎকার করে।

তাহার চিৎকার মানুষ ব্যতীত/সমস্ত প্রাণীই শুনিতে পায়। যদি সেই চিৎকার মানুষ শুনিত তাহা হইলে অজ্ঞান হইয়া পড়িত। যদি এ ব্যক্তি নেবার হয়, তাহা হইলে সে স্বীয় বাহকগণকে বলে আমাকে যেখানে নেওয়ার তাতাতাড়ি নিয়া যাও তোমরা যদি সে স্থান দেখিতে পাইতে তাহা হইলে তো:রা নিজেরাই আরো তাড়াতাড়ি লইয়া যাইতে । মৃতব্যক্তি যদি বদকার হয় “হাহা হইলে সে বাহকগণকে বলে, তাড়তাড়ি করিওনা। তোমরা যদি এ স্থান দেখিতে পাইতে তাহা হইলে সেখানে আমাকে অবশ্যই লইয়া যাইতেনা । দাফনের প্র কৃষ্তবর্ণ নীল নয়ন যুগল বিশিষ্ট দুই ফিরিশতা উপস্থিত হয়। মতব্যক্তি যদি -নককার হয় নামায তাহার মাথার দিক হইতে তাহাদেরকে বাধা “দান করিয়া বলে যে, এই দিকে আসিওনা। কবরের ভয়েই তো সে রাতের “বলায় নামাতে লিপ্ত থাকিত। মাতাপিতার সেবা পায়ের দিক হইতে বাধা দিবে, সদকা ডান দিক হইতে বাধা দিবে, আর রোযা বাম হইতে বাধা দিবে।

পার্থিব জ’বন তো সামান্য কয়েক দিন মাত্র । আজ জীবিত এবং সুস্থাবস্থায় কবর এবং হাশরের জন্য কিছু কামাই করার সুযোগ আছে। কেননা মৃত্যুর পর কবরে গিয়া মানুষ কোন আমল করিতে পারিবেনা । [মৃত্যুর পর) একবার কালেমা শাহাদাত পড়িতে চাইবে, কিন্তু অনুমতি পাইবেনা। পার্থিব জীবন আসল) পুঁজির ন্যায় । উহার বর্তমানে মানুষ সব কিছুই করিতে পারে। যেমনি ভাবে পুঁজি শেষ হইয়া গেলে ব্যবসা করা দুষ্কর হইয়া পড়ে, তদ্রুপ জীবন নিঃশেষ হইয়া যাওয়ার পর সকল প্রকার আমল করা অসম্ভব হইয়া যায় । (এই জন্যই) আজ পরিশ্রম করিয়া কিছু অঁজন করার সময় ।

জ্ঞানতত্ত্ব নিয়ে আর কোন বই লাগলে কমেন্ট করে জানাবেন.

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button