Currently set to Index
Currently set to Follow
বই রিভিউ ও ডাউনলোডমুনীর চৌধুরী Pdf Download(সকল বই) - Munier Choudhury Books PDF

রক্তাক্ত প্রান্তর উপন্যাস PDF Download

Roktakto Prantor PDf by Munir Chowdhury

book রক্তাক্ত প্রান্তর
Author
Publisher
ক্যাটাগরি উপন্যাস
Edition 1st Edition, 2018
Number of Pages 96
Country বাংলাদেশ
ফাইল ফরমেট পিডিএফ ডাউনলোড

উপন্যাস  রক্তাক্ত প্রান্তর বই রিভিউ: মুনীর চৌধুরীর লিখা নাটক রক্তাক্ত প্রান্তর, যার পটভূমি পানিপথের তৃতীয় যুদ্ধ।
প্রধান চরিত্রগুলোর মধ্যে অন্যতম আহমদ শাহ আবদালী, ইব্রাহিম কার্দি, নবাব সুজাউদ্দৌলা, নবাব নজীবদ্দৌলা।
নাটকের শেষ দৃশ্য পাঠকের হৃদয়ছুয়ে যাবে যেখানে, জোহরা বেগম এতদিনের প্রতীক্ষা-স্বপ্ন-কল্পনা সব ব্যর্থ হয়েছে, মুক্তির ফরমান নিয়ে কারাগারে গিয়ে দেখে ইব্রাহিম কার্দি নিহত। জোহরার আর্তনাদ নিয়েই পড়া শেষ করতে হবে পাঠকদের।
রক্তাক্ত প্রান্তর নাটক একটি সার্থক ট্রাজেডির দৃষ্টান্ত।

নাট্যকারের কথা:  পানিপথের তৃতীয় যুদ্ধ এই নাটকের পটভূমি । এই যুদ্ধ অনুষ্ঠিত হয় ১৭৬১ সালে মারাঠা বাহিনীর নেতৃতৃ করেন বালাজী রাও পেশোয়াঃ মুসলিম শক্তির পক্ষে আহমদ শাহ্‌ আবদালী। এই যুদ্ধের ইতিহাস যেমন শোকাবহ তেমনি ভয়াবহ- হিন্দু ও মুসলিম পরম্পরকে নিশ্চিহ্ করে দেবার সঙ্কল্প নিয়ে যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়। যুদ্ধের স্থল পরিণাম মারাঠাদের পরাজয় ও পতন, মুসলিম শক্তির জয় ও প্রতিষ্ঠা লাভ। জয়-পরাজয়ের এই বাহ্য ফলাফলের অপর পিঠে রয়েছে উভয় পক্ষের অপরিমেয় ক্ষয়ক্ষতির রক্তাক্ত স্বাক্ষর । যতো হিন্দু আর যতো মুসলমান এই যুদ্ধে প্রাণ দেয় পাক-ভারতের ইতিহাসে তেমন আর কোনোদিন হয় নি। মারাঠারা সম্পূর্ণরূপে পরাজিত হলো বটে কিন্তু মুসলিম শক্তিও কম ক্ষতিগ্রস্থ হলো না। অল্পকাল মধ্যেই বিপর্যস্ত ও হতবল মুসলিম শাসকবর্গকে পদানত করে বৃটিশ রাজশক্তি ভারতে তার শাসনব্যবস্থা কায়েম করতে উদ্যোগী হয়। পানিপথের তৃতীয় যুদ্ধের অব্যবহিত ফলাফল যেমন মানবিক -দৃষ্টিতে বিষাদপূর্ণ তার পরবর্তীকালীন পরিণামও তেমনি জাতীয় জীবনের জন্য গ্রানিকর এই রক্তরঞ্জিত পানিপথের প্রান্তরেই আমার নাটকের পট উন্মোচিত।

তবে যুদ্ধের ইতিহাস আমার নাটকের উপকরণ মাত্র-অনুপ্রেরণা নয়। ইতিহাসের এক’ বিশেষ উপলব্ধি মানব-ভাগ্যকে আমার কল্পনায় যে বিশিষ্ট তাৎপর্ষে উদ্ভাসিত করে তোলে নাটকে আমি তাকেই প্রাণদান করতে চেষ্টা করেছি। আমার নাটকের পাব্র-পাত্রীরা মহাযুদ্ধের এক বিষময় পরিবেশের শিকার । নিজেদের পরিণামের জন্য তারা সকলেই অংশত দায়ী হলেও তাদের বেশির ভাগের জীবনের রূঢুতর আঘাত যুদ্ধের সূত্রেই প্রাপ্ত। রণক্ষেত্রের সর্বাঙ্গীন উত্তেজনা ও উন্মাদনা এদের জীবনেও সঞ্চারিত করে এক দুঃসহ অনিশ্চিত অস্থিরতা । রণস্পর্শে বিদীর্ণ করে, রক্তাক্ত হয় মানুষের মন। যুদ্ধাবসানে পানিপথের প্রান্তরে অবশিষ্ট যে কয়টি মানব-মানবীর হৃদয়ের স্পন্দন অনুভব করি তাদের সকলে অবান্তর রণক্ষেত্রের চেয়ে ভয়াবহরূপে বিধ্বস্ত ও ক্ষতবিক্ষত । প্ান্তরের চেয়ে এই রক্তাক্ত অন্তরই বর্তমান নাটক রচনায় আমাকে বেশি অনুপ্রাণিত করেছে।

ডাউনলোড লিংক:  

Contents

 Download PDF ]

রক্তাক্ত প্রান্তর এর উক্তি:

মানুষ মরে গেলে পচে যায়, বেঁচে থাকলে বদলায়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button